অনুপ্রাণন, শিল্প-সাহিত্যের অন্তর্জাল এ আপনাকে স্বাগতম!
জুলাই ১৭, ২০২৪
২রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
জুলাই ১৭, ২০২৪
২রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এমরান কবির -
এমরান কবির – গুচ্ছকবিতা

মনোমুগ্ধকর খুনি

সহজ প্রয়াণের মতো বিস্মৃতিকে স্বাগত জানাই।
ছবিগুলো জীবন্ত হয়ে উঠলে বলি
চলে যাও বৃক্ষবাহিত শোকসভা ছেড়ে।
তারা যায় না, ফিরে আসে
বলে, হারিয়ে যাওয়া মারবেল যে গোলাকার, খালি ঘোরে
হয়ে যায় চোখের মণি
ঘুরতে ঘুরতে
স্বাগত প্রয়াণ এভাবে হয়ে যায় মনোমুগ্ধকর খুনি

জীবন

কোনো এক জীবনে, ভেবে দেখি
বেঁচেছিলাম আমরা, অভিন্ন
লবণজলে, স্থলে ও বাতাসে
আজও এক জীবনে, ভাবছি
রুপোলি জোছনায় ছিল কি দিগন্তরেখা!
তাহলে এক জীবন আর এই জীবন
মাঝে কীভাবে যে কেটে গেল নিঃশ্বাস!
আমি কিছুই করিনি, তবুও
দুঃস্বপ্নে তোমার হয়ে যায় সর্বনাশ

এপিটাফ

এপিটাফ ঝরে গেল একটি ফুলে
কোন ভুলে সহস্র রাতের বেড়া ভেঙে
পড়ে গেল একটি পোকা— ভোরে, অভ্যন্তরে
জানি না, এ কোন অন্ধজালে
উড়তে থাকে চক্রভেদী জাল
দৃষ্টি ধুয়ে, ধোঁয়ায় মেতে আসতে থাকে
পবিত্র মাতাল
ফুল ঝরে গেল এপিটাফে
একটি বর্ণে ভেসে উঠল প্রজাপতি
জীবন ফুড়ে আবদ্ধ করল জীবনের অনুভূতি।

————–

এমরান কবির

এমরান কবিরের জন্ম ০৫ এপ্রিল ১৯৭৯, বগুড়ার কৃষ্ণপুরে। অধুনালুপ্ত দৈনিক আজকের কাগজ-এ সাব এডিটর হিসেবে যোগদানের মাধ্যমে কর্মজীবনে প্রবেশ। এখন একটি অসরকারি ব্যাংকে কাজ করেন। সম্পাদনা করেছেন ছোটকাগজ থার্ডম্যাগ, সেন্ট্রাল জেল, পরিধি

প্রকাশিত গ্রন্থ

কী সুন্দর মিথ্যাগুলো (কাব্য, ২০১১), নিদ্রাগহন মহাশূন্যে (গল্পগ্রন্থ, ২০১২), পালকভরা সূর্যাস্ত (কাব্য, ২০১৩), আমি লিখেছি এইসব, আমি লিখি নাই (গদ্য, ২০১৪), নীল বোতাম (উপন্যাস, ২০১৬), কী সুন্দর মিথ্যেমানুষ (উপন্যাস, ২০১৮), পাখির ঠোঁটে দাগ (কাব্য, ২০১৯), তিলোত্তমা বিষয়ক পাপ (উপন্যাস, ২০২০), আমাকে হত্যার পর জেগে ওঠে চাঁদেও শহর (কাব্য, ২০২২)।

সম্মাননা ও পুরস্কার

জেমকন তরুণ কথাসাহিত্য পুরস্কার, ২০১০
পাঠকপণ্য পাঠশালা, ২০১২
অক্ষরবৃত্ত পাণ্ডুলিপি পুরস্কার, ২০১৯
অপরাজিত সাহিত্য পুরস্কার, ২০২৩

 

Print Friendly, PDF & Email

Read Previous

কৃষ্ণচূড়া

Read Next

ড. জসীমউদ্দিন আহমেদ : ‘৫২-র ভাষা আন্দোলনের অনন্য পথিকৃৎ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *